শোকাহত পুরো ক্রিকেটবিশ্ব না ফেরার দেশে চলে গেলেন আশরাফুল

ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের (ডিপিএল) এবারের আসর খেলেই অবসরে যাচ্ছেন মোহাম্মদ আশরাফুল। ডিপিএলের আগামী মৌসুমে আর খেলতে দেখা যাবে না দেশের ক্রিকেটের একসময়কার এই জনপ্রিয় তারকাকে। এমনকি ২০২৩ সালের

পর ঘরোয়া ক্রিকেটের আর কোনো পর্যায়েই দেখা যাবে না আশরাফুলকে।এক সাক্ষাতকারে তিনি নিশ্চিত করেছেন এমনটাই।শেষবারের ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে ব্রাদার্স ইউনিয়নের হয়ে খেলতে দেখা গেছে আশরাফুলকে। ৩৮ বছর

বয়সী এই ডানহাতি ব্যাটার এবারের মৌসুমে খেলবেন সাকিব আল হাসানের মোহামেডানের হয়ে।প্রায় দুই যুগের খেলোয়াড়ি জীবনে এখন পর্যন্ত ২৭৯টি লিস্ট এ ম্যাচ খেলেছেন আশরাফুল। ১১টি সেঞ্চুরি এবং ৩১টি হাফ সেঞ্চুরিতে করেছেন

৬ হাজার ১৫৮ রান। গড় ২৫.৪৪। সর্বোচ্চ খেলেছেন ১৪১ রানের অপরাজিত ইনিংস।নিজের অবসর প্রসঙ্গে আশরাফুল বলেন, ‘এটাই আমার ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে শেষ মৌসুম। এই মৌসুমের পর ঘরোয়া ক্রিকেটে সীমিত ওভারের

ম্যাচ থেকে অবসরে যাচ্ছি। আর সামনে যে বিসিএল, এনসিএল আছে; সেগুলো হবে লঙ্গার ভার্সনে আমার শেষ মৌসুম।আমি ঘরোয়া ক্রিকেটের সব ধরনের জায়গা থেকে অবসরে যাওয়ার পরিকল্পনা করেছি।’প্রথম শ্রেণির ক্যারিয়ারে

আশরাফুল খেলেছেন ১৮৩টি ম্যাচ। সেখানে ২১টি সেঞ্চুরি এবং ৪২টি হাফ সেঞ্চুরিসহ ২৮.৬৩ গড়ে ৯ হাজার ১৯২ রান করেছেন তিনি।২০১৩ সালের মে তে শেষবারের মতো জাতীয় দলের জার্সিতে খেলেন আশরাফুল। তারপর ফিক্সিং

কান্ডে ৫ বছরের জন্য নিষিদ্ধ হওয়ায় আর জাতীয় দলেই ফেরা হয়নি তার। যদিও লাল-সবুজের জার্সিতে এখনও দেশকে প্রতিনিধিত্ব করতে চান আশরাফুল।এ কারণে ঘরোয়া ক্রিকেটের অবসর পরিকল্পনায়ও জাতীয় দলকে রেখেছেন তিনি। এবারের ডিপিএল এবং এই বছরের শেষভাগে অনুষ্ঠেয় এনসিএল, বিসিএলে খেলে আবারও জাতীয় দলে ফিরতে চান তিনি।