শিরোপা জয়ের সমীকরণ জটিল করল আর্জেন্টিনা, দেখেনিন কঠিন হিসাব নিকাশ

চা’র মা’স আ’গে শে’ষ হ’ও’য়া কা’তা’র বি’শ্ব’কা’পে দী’র্ঘ ৩৬ ব’ছ’রে’র শি’রো’পা খ’রা কা’টি’য়ে’ছে আ’র্জে’ন্’টি’না। স্ব’প্ন পূ’র’ণ হ’য়ে’ছে মে’সি’র। ‘কা’তা’র বি’শ্ব’কা’পে’র সে’ই ছ’ন্দ ধ’রে রে’খে’ছে মে’সি’র আ’র্জে’ন্’টি’না। কা’তা’র বি’শ্ব’কা’পে’র দু’ইটি’ প্রী’তি ম্যা’চ খে’লে দু’টি’তে’ই ‘জ’য়

পে’য়ে’ছে আ’র্জে’ন্’টি’না। মে’সি’দে’র পা’শা’পা’শি’ উ’ড়’ছে মে’সি’র উ’ত্ত’র’সূ’রী’রা’।বে অ’নূ’র্’ধ্ব-১৭ দ’ক্ষি’ণ আ’মে’রি’কা’ন চ্যা’ম্পি’য়’ন’শি’পে শি’রো’পা জ’য়ে’র স’মী’ক’র’ণ জ’টি’ল ক’র’ল আ’র্জে’ন্’টি’না’র যু’বা’রা। ফা’ই’না’ল রা’উ’ন্’ডে নিজে’দে’র তৃ’তী’য় ম্যা’চে প্যা’রা’গু’য়ে’র স’ঙ্গে

ড্র ক’রে মা’ঠ ছে’ড়ে’ছে’ মে’সি-দি’বা’লা’র উ’ত্ত’র’সূ’রী’রা’।এ’র আ’গে অ’নূ’র্ধ্ব-১৭ দ’ক্ষি’ণ আ’মে’রি’কা’ন চ্যা’ম্পি’য়’ন’শি’পে রী’তি’ম’তো উ’ড়’ছি’ল আ’র্জে’ন্’টিনা। গ্রু’প চ্যা’ম্পি’য়’ন হয়ে’ ফা’ই’না’ল রা’উ’ন্’ড নি’শ্চি’ত ক’রা’র ‘প’র এ’গো’চ্’ছিল শি’রো’পা’র দি’কে’ও। ল’ক্ষ্য ছি’ল ‘প’ঞ্’চ’ম

শি’রো’পা’ জ’য়। কি’ন্তু টু’র্না’মে’ন্’টে’র ফা”ই’না’ল’ রাউ’ন্ডে’র’ তৃ’তী’য় ম্যা’চে ড্র ক’রে সে’ই স’মী’ক’র’ণ কি’ছু’টা ক’ঠি’ন ক’রে ফে’ল’ল আল’বি’সে’লে’স্’তা”রা।ম’ঙ্গ’ল’বা’র ই’কু’য়ে’ড’রে’র এ’স্তা’দি’ও দে ‘লি’গা’ দে’পো’র্’টি’ভা ই’উ’নি’ভা’র্’সি’টি’রি’য়া’য়’ প্যা’রা’গু’য়ে’র মু’খো’মু’খি’ ‘হয় আ’র্জে’ন্’টিনা।

এ ম্যাচে ০-০ গোলের ড্র নিয়ে মাঠ ছাড়ে আগামী দিনের মেসি-ডি মারিয়ারা।এদিন গোলের জন্য মরিয়া আর্জেন্টাইন যুবারা প্যারাগুয়ের গোলপোস্টে ২৯টি শট নেয়। যার ১০টিই ছিল টার্গেটে। কিন্তু কাঙ্ক্ষিত গোলের দেখা পায়নি। অন্যদিকে

প্যারাগুয়ের নেয়া ১২টির মধ্যে ৩টি ছিল টার্গেটে।শেষ পর্যন্ত উভয় দল গোলশূন্য ড্র নিয়ে মাঠ ছাড়ে। এ ড্রয়ের ফলে তিন ম্যাচ শেষে ২ জয় ও এক ড্রয়ে আর্জেন্টিনার সংগ্রহ হলো ৭ পয়েন্ট। ফাইনাল রাউন্ডের তিন ম্যাচ শেষে স্বাগতিক ইকুয়েডর,

ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনা ৭ পয়েন্ট সংগ্রহ করেছে। কিন্তু গোল গড়ে ইকুয়েডর শীর্ষস্থানে অবস্থান করছে। আর্জেন্টিনা রয়েছে দ্বিতীয় ও ব্রাজিল তৃতীয় স্থানে।আর্জেন্টিনা স্বাগতিক ইকুয়েডরের মুখোমুখি হবে ২০ এপ্রিল নিজেদের চতুর্থ ম্যাচে। আর

চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ব্রাজিলের বিপক্ষে খেলতে নামবে আগামী ২৩ এপ্রিল পঞ্চম ও শেষ ম্যাচে।উল্লেখ্য, ফাইনাল রাউন্ড নিশ্চিত করা ছয়টি দলই মুখোমুখি হবে একে অপরের। প্রতিটি দলের থাকবে পাঁচটি করে ম্যাচ। পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে থাকা দল হবে চ্যাম্পিয়ন। আর দ্বিতীয় স্থানে থাকা দল হবে রানার্সআপ। বাকি চার দলের মধ্যে যথায়ক্রমে তৃতীয়, চতুর্থ, পঞ্চম ও ষষ্ঠ স্থান নির্ধারণ হবে।