শচীন-সেবাগ-বাটলারদের পিছনে ফেলে টাইগারদের নবম ব্যাটসম্যান হিসেবে নতুন মাইলফলক স্পর্শ করলেন লিটন

আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে দ্বিতীয় ওয়ানডেতে ৭০ রানের ইনিংস খেলে আউট হন লিটন দাস। যে পথে বাংলাদেশের নবম ব্যাটার হিসেবে ২ হাজার ওয়ানডে রানের মাইলফলক স্পর্শ করেন।
বাংলাদেশের হয়ে শাহরিয়ার নাফিসের সাথে যৌথভাবে

দ্রুততম ২ হাজারি ক্লাবে প্রবেশ করলেন এই কিপার ব্যাটার।নাফিসের মতো লিটনেরও লেগেছে মাত্র ৬৫ ইনিংস।বাংলাদেশের হয়ে দ্বিতীয় সর্বনিম্ন ৬৯ ইনিংস লেগেছে সাকিব আল হাসানের। যেখানে তামিম ইকবালের ৭০, ইমরুল কায়েসের

৭১, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের ৯৩, হাবিবুল বাশার সুমনের ৯৫, মুশফিকুর রহিমের ৯৭ ও মোহাম্মদ আশরাফুলের লেগেছিল ১০০ ইনিংস।আজ (২০ মার্চ) ১৯৪৫ রান নিয়ে ইনিংস শুরু করেন লিটন। ২২তম ওভারের প্রথম বলে ছক্কা মেরে

৪৯ থেকে ৫৫ রানে পৌঁছে যান টাইগার ওপেনার। নিজের ফিফটির সাথে পূর্ণ করেছেন ওয়ানডেতে বাংলাদেশের হয়ে ২ হাজার রানও।পরে অবশ্য আউট হন ৭১ বলে সমান তিনটি করে চার, ছক্কায় ৭০ রান করে।২০১৫ সালে মিরপুরে ভারতের

বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে ওয়ানডে অভিষেক হয় লিটনের। যে ম্যাচে রবিচন্দ্রন অশ্বিনের বলে আউট হওয়ার আগে ৮ রানের বেশি করতে পারেননি লিটন। সময়ের ব্যবধানে দেশের হয়ে ওয়ানডেতে দ্রুততম ২ হাজার রান এখন তার।

আন্তর্জাতিক ওয়ানডেতে সবচেয়ে কম ইনিংস খেলে ২ হাজার রানের রেকর্ড দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক ব্যাটার হাশিম আমলার। তার লেগেছিল মাত্র ৪০ ইনিংস। দ্বিতীয় সর্বনিম্ন ৪৫ বল লেগেছে জহির আব্বাস, কেভিন পিটারসেন ও বাবর আজমের।

লিটনের ৬৫ ইনিংসের চেয়ে বেশি লেগেছে বীরেন্দর শেবাগ (৬৬), ফাফ ডু প্লেসিস (৬৬), জস বাটলার (৬৬), জাভেদ মিয়াদাদ (৬৭) মারভান আত্তাপাত্তু (৬৭), মার্ক ওয়াহ (৬৭), শচীন টেন্ডুলকালদের (৭০)।