মালিঙ্গাার বিশ্ব রেকর্ড ভেঙে ব্রেট লি-আফ্রিদির পাশে স্টার্ক

চলছে ভারত বনাম অস্ট্রেলিয়ার মধ্যকার তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ। ইতিমধ্যে শেষ হয়েছে সিরিজের দুইটি ম্যাচ। প্রথম জয় তুলে নেয় স্বাগতিক ভারত। তবে দারুন ভাবে ঘুরে দাড়িয়ে ১০ উইকেটের বিশাল জয় তুলে নিয়ে সিরিজে ১-১ সমতা

ফেরায় সফরকারী অস্ট্রেলিয়া।রোববার (১৯ মার্চ) বিশাখাপত্তমে ভারতকে তাদের মাটিতে চতুর্থ সর্বনিম্ন স্কোর ১১৭ রানে অলআউট ২৩৪ বল হাতে রেখে ১০ উইকেটে জিতে সিরিজে ১-১ এ সমতায় ফিরেছে অস্ট্রেলিয়া। ম্যাচে ভারতকে একাই গুঁড়িয়ে

দেন পেসার মিচেল স্টার্ক।এদিন টস জিতে বোলিংয়ে এসে ম্যাচের শুরুতেই স্টার্কের প্রথম স্পেলে ব্যাকফুটে চলে যায় ভারত। ইনিংসের তৃতীয় বলে ভারতের তরুণ ওপেনার শুভমান গিলকে পয়েন্টে ক্যাচ দিতে বাধ্য করে শুরুটা করেছেন স্টার্ক।

এরপর নিজের তৃতীয় ওভারে পর পর দুই বলে ভারতের অধিনায়ক রোহিত শর্মাকে ব্যাকওয়ার্ড পয়েন্টে ও সূর্যকুমার যাদবকেকে এলবিডব্লিউতে ফিরিয়ে গোল্ডেন ডাকের অপবাদ দেন স্টার্ক। নিজের প্রথম স্পেলে সুইং ডেলিভারিতে স্টার্ক

তার শেষ উইকেট পান লোকেশ রাহুলের।আর শেষ স্পেলে সিরাজকে বোল্ড ৯ম বারের মতো ওয়ানডেতে ইনিংসে ৫টি করে উইকেট পূর্ণ করেন স্টার্ক। যেখানে তিনি শ্রীলঙ্কান পেসার লাসিথ মালিঙ্গাকে ছাড়িয়ে স্বদেশি ব্রেট লি ও পাকিস্তানি লেগ স্পিনার

শহীদ আফ্রিদির পাশে গিয়ে বসেছেন।এদিন ১০৯ ম্যাচের ক্যারিয়ারে ৯ম বারের মতো ইনিংসে ৫ উইকেট শিকার করেন বাঁহাতি পেসার স্টার্ক। যেখানে তিনি ছাড়িয়ে গেছেন শ্রীলঙ্কান পেসার লাসিথ মালিঙ্গার ২২৬ ম্যাচে ৮ বার ইনিংসে ৫ উইকেট শিকারের

রেকর্ড।একই সাথে তিনি স্পর্শ করেছেন স্বদেশি সাবেক পেসার ব্রেট লির রেকর্ড। ২০০০ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত ২২১ ম্যাচের ক্যারিয়ারে ৯ বার ইনিংসে ৫ উইকেট শিকার করেছিলেন লি। এই রেকর্ডে স্পর্শ করেছেন পাকিস্তানি সাবেক লেগ স্পিনার

শহীদ আফ্রিদিকেও। ৩৯৮ ম্যাচের ৩৭২ ইনিংসে এই রেকর্ড গড়েছিলেন কিংবদন্তি এই অলরাউন্ডার।ইনিংসে ৫ উইকেটে তার উপরে রয়েছেন রিভার্স সুইংয়ের রাজা পাকিস্তানি সাবেক পেসার ওয়াকার ইউনুস (১৩ বার) এবং শ্রীলঙ্কান স্পিন জাদুকর মুত্তিয়া মুরালিধরন (১০ বার)। ফলে ৩৩ বছর বয়সী অজি তারকা স্টার্কের সামনে নিজেকে অনন্য উচ্চতায় নিয়ে যাওয়ার সুযোগ রয়েছে।