ব্রেকিং নিউজ: কোটি ভক্তকে কাঁদিয়ে অবসরের ঘোষণা দিলেন লিওনেল মেসির সতীর্থ

গত ২০২২ কাতার বিশ্বকাপের দলে রাখেননি কোচ লুইস এনরিকে। নতুন কোচ লুইস ডে লা ফুয়েন্তের পরিকল্পনাতেও নেই। মন না চাইলেও তাই আন্তর্জাতিক ফুটবল থেকে অবসরের ঘোষণা দিলেন স্পেনের বিশ্বকাপ জয়ী ডিফেন্ডার সার্জিও রামোস।

৩৬ বছর বয়সী এই সেন্টার ব্যাক জানান, বৃহস্পতিবার ডে লা ফুয়েন্তে তাকে ফোন করেন। স্পেনের নতুন কোচ ফোনে তাকে দুঃসংবাদ দেন। জানান, প্যারিস সেন্ট জার্মেইর সঙ্গে তার ফর্ম যাই থাকুক না কেন জাতীয় দলে আর জায়গা হবে না।

এদিকে রামোস সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টে জানান, ‘আমি বর্তমান প্রধান কোচের কাছ থেকে ফোন পেয়েছিলাম। তিনি জানিয়েছেন, আমি তার পরিকল্পনায় নেই এবং ভবিষ্যতেও থাকবো না, আমি যেমন পারফর্মই করি না কেন। বিষাদে ভারাক্রান্ত

হৃদয় নিয়ে আমার পথচলা শেষ হলো, যেটা আমি শেষ করতে চেয়েছিলাম লা রোজাদের সঙ্গে ভালো কোনো অভিজ্ঞতা নিয়ে।’তিনি আরও বলেন, ‘আমি সত্যি বিশ্বাস করি, আমার পছন্দে কিংবা জাতীয় দলে আমার পারফরম্যান্স উপযুক্ত

না হওয়ার কারণে এই যাত্রা শেষ হওয়ার কথা ছিল, বয়স কিংবা অন্য কোনো কারণে নয়।’২০২১ সালে রিয়াল মাদ্রিদ থেকে পিএসজিতে যাওয়া রামোস পরিষ্কার জানিয়ে দিয়েছেন, তার অবসরের সিদ্ধান্ত কমবেশি হলেও ডে লা ফুয়েন্তের চাপিয়ে দেওয়া।

তিনি বলেন, ‘বয়স কোনো গুন বা দোষ নয়। এটা শুধুই একটা সংখ্যা এবং সামর্থ্যের জন্য অপরিহার্য কিছু নয়। লুকা মদরিচ, লিওনেল মেসি ও পেপের মতো খেলোয়াড়দের প্রশংসা করি আমি।তারা ফুটবলের ঐতিহ্য, মূল্যবোধ, মেধা ও

ন্যায়বিচারের নির্যাস। দুর্ভাগ্যবশত আমার ক্ষেত্রে এমন কিছু হচ্ছে না, কারণ ফুটবল সবসময় সুন্দর নয়। তবে আমি দুঃখ নিয়ে এটা মেনে নিচ্ছি, কিন্তু আমার মাথা উঁচু রাখছি।’গত ২০০৫ সালে রামোসের অভিষেক হয় জাতীয় দলে। তার

দেশের হয়ে সাতটি বড় টুর্নামেন্ট খেলে জিতেছেন তিনটি। দেশের হয়ে ১৮০ ম্যাচ খেলেছেন রামোস, স্পেনের জাতীয় দলের যে কারো চেয়ে বেশি। গোল করেছেন ২৩টি। ২০০৮ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত টানা দুটি ইউরো এবং ২০১০ সালের বিশ্বকাপ জিতেছেন তিনি।