ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ছোট ভাইয়ের হাতে প্রাণ গেল বড় ভাইয়ের

ব্রা’হ্ম’ণ’বা’ড়ি’য়া’র আ’খা’উ’ড়া’য় জ’মি নি’য়ে বি’রো’ধে’র জে’র ধ’রে ব’ড় ভা’ই’কে পি’টি’য়ে হ’ত্যা’র অ’ভি’যো’গ উ’ঠে’ছে ছো’ট ভা’ইয়ে’র বি’রু’দ্ধে। সো’মবা’র (১০ এপ্রিল) রা’তে ব্রা’হ্ম’ণ’বাড়ি’য়া জে’না’রে’ল হা’স’পা’তা’লে চি’কি’ৎসা’ধী’ন মৃ’ত্যু হ’য় তা’র। এ’র আ’গে

সন্ধ্যা’য় না’মা’জ শে’ষে বা’ড়ি ফে’রা’র প’থে হা’ম’লা’র ঘ’ট’না ঘ’টে। নি’হ’ত ব্য’ক্তি’র না’ম আ’ব্দু’র র’হমা’ন (৫০)। তি’নি উ’প’জে’লা’র মো’গ’ড়া ই’উ’নি’য়’নে’র নো’না’সা’র গ্রা’মে’র আ’ব্দু’ল কা’দি’র মি’য়া’র ‘ছে’লে। প’রি’বা’রে’র স’দ’স্য’রা জা’নায়, আ’ব্দু’র র’হ’মা’নে’র বস’ত’বা’ড়ি

ও পু’কু’রে’র জা’য়’গা নি’য়ে ছো’ট ভা’ই খ’লি’লু’র র’হ’মা’নে’র স’ঙ্গে এ’কা’ধি’ক মা’ম’লা’স’হ ২০ ব’ছ’র ধ’রে বি’রো’ধ চ’লে আ’স’ছে। সো’ম’বা’র দু’ই ভা’য়ে’র ম’ধ্যে বা’গ’বি’ত’ণ্ডা হ’য়। এ’র’ই জে’র ধ’রে স’ন্ধ্যা’য় আ’ব্দু’র রহ”মা’ন ম’স’জি’দ থে’কে না’মা’জ প’ড়ে বা’ড়ি’তে আ’সা’র প’থে

খলিলুর রহমান ও তার ছেলে তানভীর ও বাবুসহ ৫ থেকে ৬ জনের একটি দল লোহার রড দিয়ে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালে নিলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

আখাউড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আসাদুল ইসলাম জানান, নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত খলিলুর রহমান পলাতক। এ ঘটনায় মামলা প্রক্রিয়াধীন। তবে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য দুইজনকে থানায় আনা হয়েছে।