বিসিসিআইয়ের বড় পদক্ষেপ! ব্যক্তিগত কারণ দেখানোর কারণে কেকেআরের নোটিশ!! আইপিএল থেকে নাম প্রত্যাহার সাকিবের!

এ’বা’র মি’নি নি’লা’মে বাং’লা’দে’শে’র অ’ল’রা’উ’ন্ডা’র সা’কি’ব আ’ল হা’সা’ন’কে দ’লে নি’য়ে’ছে ক’ল’কা’তা না’ই’ট রা’ই’ডা’র্স। প্র’থ’ম থে’কে’ই তাঁ’র আ’ই’পি’এ’ল খে’লা নি’য়ে শু’রু হ’য়ে’ছি’ল জ’টি’ল’তা।’বাং’লা’দে’শ ক্রি’কে’ট বো’র্ডে’র টা’ল’বা’হা’না’তে স’ম’স্যা ছি’ল তাঁ’ৎ খে’লা নি’য়ে।

এ’বা’র সে’টা’ই হ’ল। আ’ন্ত’র্জা’তি’ক ম্যা’চ ও ব্য’ক্তি’গ’ত’ কা’র’ণ দে’খি’য়ে সা’কি’ব আ’ল হা’সা’ন আ’ই’পি’এ’ল থে’কে নি’জে’র না’ম’ প্র’ত্যা’হা’র ক’রে’ নি’লে’ন।আ’ই’পি’এ’ল শু’রু হ’ও’য়া’র প’র তাঁ’র এ’ই না’ম প্র’ত্যা’হা’রে’র সি’দ্ধা’ন্তে মো’টে’ই খু’শি ন’য় টি’ম ম্যা’নে’জ’মে’ন্ট।

এবার দেড় কোটি টাকা দিলে সাকিব আল হাসানকে দলে নিয়েছিল নাইটরা।অন্যদিকে ৫০ লাখ টাকা দিয়ে লিটন দাসকে নেয় তারা। দুই প্লেয়ারকেই তাদের বেস প্রাইসে দলে নিয়েছিল। কিন্তু আইপিএল-এর সময়ই সিরিজ রাখে বিসিবি। ফলে এই

দুই প্লেয়ারের শুরু থেকে খেলা হয়নি। সূত্রের খবর, আইপিএল খেলতে তাঁরা ছুটি চাইলেও বিসিবি ছুটি না দিয়ে তাদের খেলতে বলেছেন।লিটন দাস টেস্ট ম্যাচের পর যোগ দেবেন কেকেআর-এর সঙ্গে। তবে সাকিব আল হাসান তাঁর নাম

সরিয়ে নিয়েছেন। তবে তিনি মহামেডানের হয়ে ক্রিকেট খেলবেন।অর্থাৎ, আয়ারল্যান্ডের বিরুদ্ধে ঘরের মাঠে সিরিজ খেলা ও আয়ারল্যান্ডের বিরুদ্ধে বাইরের মাঠে সিরিজ খেলার মধ্যেকার সময়ে তিনি দেশেই ক্রিকেট খেলবেন। সূত্রের খবর, সাকিবের

এই সিদ্ধান্তে মোটেই খুশি নয় কেকেঅোর। কারণ একজন প্লেয়ারকে দলে নেওয়া মানে তাঁকে পরিকল্পনায় রেখে দলে নেওয়া।এক্ষেত্রে সাকিবের মত, অলরাউন্ডারের না খেলায় বেশ ক্ষুব্ধ কেকেঅোর ম্যানেজমেন্ট। বিশেষ করে তাঁর পেশাদারিত্বে

খুশি নন কর্তারা। এরফলে দেড় কোটি টাকার মধ্যে এক টাকাও পাবেন না তিনি।দেড় কোটি টাকার মধ্যে কোনও টাকাই পাবেন না তিনি। কারণ তিনি যদি চোট পেতেন তাহলে টাকা পেতেন। কিন্তু তিনি যেহেতু নিজের থেকে নাম সরিয়ে নিয়েছেন সেক্ষেত্রে টাকা পাবেন না।

ফলে এক বছর পর আইপিএল-এ সুযোগ পেয়েও তা কাজে লাগাতে পারলেন না। বাংলাদেশের প্লেয়ারদের খেলা নিয়ে এই সমস্যার জন্য তাদের উপর মোটেই খুশি নয় বিসিসিআই।আগামী মরশুমে তাদের উপরে পদক্ষেপ করতে পারে। সেক্ষেত্রে

তাদের ব্যানড করা হতে পারে বলে খবর। অন্যদিকে সাকিবদের পেশাদারিত্ব দেখে আগামী মরশুমে ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো তাদের কতটা দলে নিতে আগ্রহ দেখাবে সেটা বড় প্রশ্ন।যদি তাদের নিতে কোনও দল আগ্রহ না দেখায় সেক্ষেত্রে ফাঁপরে পড়বেন বাংলাদেশের প্লেয়াররা।