বাংলাদেশের কোচ হওয়ার সুবাদে প্রায় ৩০ বছর পর দুজনের দেখা, প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করতে একসাথে বড় পরিকল্পনা

দ্বিতীয় দফা বাংলাদেশ দলের কোচ হয়ে ফিরেছেন চন্ডিকা হাথুরুসিংহে। এবার দলের কোচিং প্যানেলে পেস বোলিং কোচ হিসেবে পাচ্ছেন দক্ষিণ আফ্রিকার কিংবদন্তি অ্যালান ডোনাল্ডকে।
দুজনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ক্যারিয়ার কাছাকাছি সময়ে।

এক অপরের বিপক্ষে খেলেছেনও। শ্রীলঙ্কার হয়ে ব্যাট হাতে অবশ্য হাথুরুসিংহের ক্যারিয়ার অতটা সমৃদ্ধ নয়, যতটা ডোনাল্ড বল হাতে সফল।বাংলাদেশের কোচ হওয়ার সুবাদে প্রায় ৩০ বছর পর দুজনের দেখা। আগে প্রতিপক্ষ হয়ে মুখোমুখি

হয়েছেন আর এবার প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করতে দুজনে একসাথে পরিকল্পনা করছেন।সম্প্রতি নিজের এক ইনস্টাগ্রাম পোস্টে দুজনের ছবি দিয়ে হাথুরুসিংহে লিখেন, ‘৩০ বছর পর দক্ষিণ আফ্রিকার কিংবদন্তি পেসারের সাথে সাক্ষাৎ। ২২ গজে

তাকে মোকাবেলা করার চেয়ে পাশাপাশি বসাটা অনেক স্বস্তিদায়ক।’পরিসংখ্যান ঘাঁটলেই পরিষ্কার ২২ গজে ডোনাল্ড কতটা বেকায়দায় ফেলেছে শ্রীলঙ্কার হয়ে ২৬ টেস্ট ও ৩৫ ওয়ানডে খেলা হাথুরুসিংহেকে।দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ৫ ওয়ানডে

খেলা হাথুরুসিংহে ৩ বারই আউট হয়েছেন অ্যালান ডোনাল্ডের বলে। টেস্ট খেলেছেন তিনটি, যেখানে ৫ ইনিংস ব্যাট করে ৫ বারই ডোনাল্ডের শিকার হাথুরুসিংহে।সব মিলিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ১০ বার ব্যাট করে ৮ বারই ডোনাল্ডের

কাছে হার মানতে হয়েছে হাথুরুসিংহেকে।ডোনাল্ড তার সময়ের তো বটেই সব মিলিয়েই সেরা পেসারদের তালিকায় থাকবেন। গতির ঝড়ে প্রতিপক্ষকে লন্ডভণ্ড করে দেওয়ার নজির আছে বহু।সাদা বিদ্যুৎ খ্যাত ডোনাল্ড দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে উইকেট নিয়েছেন ৬০০ এর বেশি। (টেস্টে ৩৩০ ও ওয়ানডেতে ২৭২ উইকেট)।